কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনে আওয়ামী লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ১০

কেন্দ্রীয় নেতাদের সামনে আওয়ামী লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ১০ সংগৃহীত ছবি

লালমনিরহাট জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা চলাকালীন আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে। এতে আহত হয়েছেন আওয়ামী লীগের ১০ নেতাকর্মী। শহরজুড়ে এ ঘটনায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আজ শনিবার এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে দুপুরে লালমনিরহাট মিশন মোড়ে জেলা পরিষদ অডিটরিয়াম মাঠে। রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আহদের মধ্যে ৫ নেতাকর্মীকে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম মোস্তফা স্বপনের ছেলে অনন (২৩), গোকুন্ডা যুবলীগের তারেকের (৩০) নাম জানা গেছে।

নেতাকর্মী ও পুলিশ জানান, জেলা আওয়ামী লীগ লালমনিরহাট জেলা পরিষদ অডিটরিয়ামে বর্ধিত সভা আয়োজন করে। বর্ধিত সভায় কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক ও সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক সভা মঞ্চে প্রবেশ করার সময় স্লোগানে মুখোর হয়ে উঠে সভা চত্ত্বর।

কেন্দ্রীয় নেতাদের উপস্থতিতে সভা শুরুর মুহূর্তে সভার বাইরে অডিটরিয়াম মাঠে আধিপত্য বিস্তার ও স্লোগান দেওয়া নিয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সম্পাদক অ্যাডভোকেট মতিয়ার রহমান ও সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম মোস্তফা স্বপনের গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এতে উভয় পক্ষের আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। পুলিশ গিয়ে পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। আহতদের লালমনিরহাট সদর হাসপাতাল ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  

এদিকে সভা মঞ্চে কেন্দ্রীয় নেতারা বিষয়টি বুঝতে পেয়ে দু’গ্রুপের দুই নেতা মতিয়ার ও স্বপন হলরুম থেকে বের হয়ে সংঘর্ষ নিরসন ও মাঠ থেকে সবাইকে বের করে দেওয়ার নির্দেশ দেন। পরিস্থিতি এরপর শান্ত হয়। লালমনিরহাট সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহফুজ আলম জানান, পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন :