কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে বোরো ধানে ছত্রাকের হানা

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে বোরো ধানে ছত্রাকের হানা ছত্রাকে খাওয়া ধান

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলায় ছত্রাকের আক্রমণে নষ্ট হয়ে গেছে  কৃষকের উঠতি বোরো ধানের ক্ষেত। ছত্রাকের কারণে ফসল নষ্ট হওয়ায় দিশেহারা হয়ে পড়েছেন প্রান্তিক কৃষকেরা। রোদে পুড়ে বৃষ্টিতে ভিজে ধার দেনা করে দিনের পর দিন অক্লান্ত পরিশ্রম করে অনেক আশায় বুক বেঁধে ছিলেন স্বপ্নের সোনালী ফসল ঘরে তোলার। সাধ ছিল বোরো ধান কেটে নবান্ন উৎসব করার। কিন্তু ছত্রাকের আক্রমণে ফসল নষ্ট হওয়াতে কৃষকের সে স্বপ্ন ভেংগে চুড়মার হয়ে গেছে। ফুলবাড়ী উপজেলার বড়ভিটা ইউনিয়নের মধ্য বড়ভিটা গ্রামে কৃষকের উঠতি বোরো ক্ষেতের ধান পুরোপুরি নষ্ট হয়ে গেছে।

মধ্য বড়ভিটা ও উত্তর বড়ভিটা গ্রামের কৃষক ইসমাইল হোসেন, শাহীন মিয়া , রণজিৎ কুমার, মুকুল মিয়া, জালাল উদ্দিন, শৈলেন্দ্রনাথ রায়, হাছেন আলী, নজির হোসেন, তোফাজ্জল হোসেন এর সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা জমিতে ব্রি-২৮, জিরাশাইল ও ব্রি-৮১ জাতের ধান রোপন করেছেন। চারা রোপনের পর থেকেই নিয়মমাফিক সেচ, সার ও কীটনাশক প্রয়োগ করেছেন। কয়েক দিন আগে জমির ধান গাছের শীষ সাদা হওয়া শুরু হলে স্থানীয় উপ-সহকারী  কৃষি কর্মকর্তার পরামর্শে ছত্রাক নাশক স্প্রে করেও শেষ রক্ষা হয়নি। ফসল হারিয়ে হতাশ এসব ক্ষতিগ্রস্থ কৃষক। একদিকে ফসল হারানোর শোক অপরদিকে ঋণ পরিশোধের চিন্তায় দিশেহারা হয়ে পড়েছেন তারা। ফসল হারিয়ে  তীব্র খাদ্য সংকটে পড়েছেন ক্ষতিগ্রস্থ এসব প্রান্তিক কৃষক।সংকট মোকাবিলায় চান সরকারী সহায়তা।

এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মাহবুবুর রশীদ বলেন, বোরো ক্ষেতে ছত্রাকের সংক্রমণ রোধে মাঠ পর্যায়ে কৃষকের পাশে থেকে আমরা সেবা দিয়ে যাচ্ছি। সঠিক মাত্রায় ছত্রাকনাশক স্প্রে করে এ রোগ থেকে ফসল রক্ষা করা সম্ভব। কৃষকদের সচেতন করার পাশাপাশি সংক্রমণ প্রতিরোধে  ফসলে আগাম ছত্রাকনাশক স্প্রে করার পরামর্শ দেয়া হচ্ছে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন :