বাক-প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে (১২) ফসলি জমিতে নিয়ে ধর্ষণের শিকার

বাক-প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে (১২) ফসলি জমিতে নিয়ে ধর্ষণের শিকার বাক-প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে (১২) ফসলি জমিতে নিয়ে ধর্ষণের শিকার

বাক-প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে (১২) ফসলি জমিতে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে মো. দেলোয়ার হোসেন (২০) নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলার আড়াইসিধা ইউনিয়নের পাঁচভিটা গ্রামের রুপা মেম্বারের বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়। অভিযুক্ত দেলোয়ার একই এলাকার মো. মলাই মিয়ার ছেলে।কিশোরীর মা জানায়, শুক্রবার রাত ৮টার দিকে ওই কিশোরীকে দিয়ে তার চাচাতো ভাই মানিক মিয়ার স্ত্রী মিনা বেগমের বাড়িতে তরকারি দিয়ে পাঠায়। কিন্তু বেশ কতক্ষণ পরেও ওই কিশোরী ঘরে ফিরে না আসায় তিনি খুঁজতে বের হন। এসময় মানিক মিয়ার বাড়ির পিছনে কলাগাছের কাছে তার প্রতিবন্ধী মেয়ের গলার আওয়াজ শুনতে পায়। টর্চের আলো জ্বালালে অভিযুক্ত দেলোয়ার দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে বাড়িতে নিয়ে আসা হলে মেয়ে তাকে জানায়, তরকারি দিয়ে ঘরে ফেরার পথে অভিযুক্ত দেলোয়ার তাকে জাপটে ধরে নির্জন জায়গায় নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে স্থানীয় লোকজন বিষয়টি মীমাংসা করার চেষ্টা করলেও মেয়ের মা তা মেনে নেয়নি। খবর পেয়ে পুলিশ মেয়েটিকে উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে প্রাথমিক পরীক্ষা ও চিকিৎসা শেষে জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে। 

আপনার মতামত লিখুন :